বাংলাদেশ-নিউজিল্যান্ড এর পরিসংখ্যান

বাংলাদেশ-নিউজিল্যান্ড এর পরিসংখ্যান :

গেল কিছুদিন আগে বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলেছে তারা। অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দল পাঁচ টি-টোয়েন্টি সিরিজ ম্যাচ খেলতে আসা হয়েছিল বাংলাদেশে।



অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ জয় এর আশা ছিল নাহ বাংলাদেশ। তবে সিরিজ বদলে গেছে ইতিহাসের পাতায় অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে বাংলাদেশ চারটি ম্যাচে জয় পেয়েছে নিশ্চিত করেছে বাংলাদেশের টাইগাররা।

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে একই রকম ইতিহাস গড়তে চান বাংলাদেশের টাইগাররা। বাংলাদেশের দলের ক্যাপ্টেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ বলেছেন যে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে যেমন আমরা জয় পেয়েছি তেমনি ভাবে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে জয় পাবো আর সিরিজ আমরাই নেব ইনশাআল্লাহ।

ব্ল্যাকক্যাপসদের বিপক্ষে ওয়ানডেতে সিরিজ জয়ের নজির থাকলেও টি-২০ তে এখন পর্যন্ত কোনো ম্যাচই জিততে পারেনি টিম টাইগার্স। দু’দলের মুখোমুখি পরিসংখ্যান কী বলছে, তা নিয়েই এবারের প্রতিবেদন।

ঘরের মাটিতে দুর্বার বাংলাদেশ। আর নিউজিল্যান্ড নামটা আসলেই চলে আসে বাংলাওয়াশের স্মৃতি। একবার নয়, টাইগাররা দু’বার নিজেদের মাঠে কিউইদের হোয়াইটওয়াশ করেছে। যদিও সেই সিরিজ দুটি ছিল ওয়ানডে ফরম্যাটে। তবে টি-২০তে গল্পটা তেমন না। সিরিজ শুরুর আগে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশের পরিসংখ্যান খুব একটা আশা দেখাবে না সমর্থকদের।

কিউইদের বিপক্ষে টি-২০ তে এখন পর্যন্ত ১০ বার মুখোমুখি হয়েছে টিম টাইগার্স। জয়ের খাতা শূন্য। টেস্ট খেলুড়ে দেশগুলোর মধ্যে দক্ষিণ আফ্রিকা আর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষেই এই ফরম্যাটে জয়হীন বাংলাদেশ। তবে সাম্প্রতিক অভিজ্ঞতা থেকে বলাই যায় সেই রেকর্ড এবার হয়তো বদলাবে।

গেল মার্চে নিউজিল্যান্ডে দ্বিপাক্ষিক সিরিজ খেলতে গিয়ে রীতিমতো নাজেহাল হতে হয় বাংলাদেশকে। ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজে টানা ছয় ম্যাচ হেরে ফিরতে হয় দলকে। সিরিজের শেষ টি-টোয়েন্টিতে মাহমুদউল্লাহ বাহিনী অলআউট হয় মাত্র ৭৬ রানে।

যদিও ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটে এটাই বাংলাদেশের সর্বনিম্ন স্কোর না। ২০১৬ টি-২০ বিশ্বকাপে ইডেন গার্ডেনসে বাংলাদেশকে ৭০ রানে গুটিয়ে দিয়েছিল কিউইরা। টি-২০তে বাংলাদেশের সর্বনিম্ন তিনটি স্কোরই এসেছে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে।

নিজেদের মাঠে মাত্র একবার নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে লড়েছে বাংলাদেশ। সেটাও ২০১৩ সালে। ম্যাচটা হারলেও, কিউইদের বিপক্ষে নিজেদের সর্বোচ্চ ১৮৯ রানের স্কোর করেছিল টাইগার্স।

দীর্ঘ ৮ বছর পর দ্বিপাক্ষিক সিরিজ খেলতে বাংলাদেশ এসেছে নিউজিল্যান্ড। ব্ল্যাকক্যাপসদের বিপক্ষে ঘরের মাটিতে শেষ ১১ ম্যাচে মাত্র একবারই হেরেছে টাইগার্স। এবার তারা এসেছে খর্ব শক্তির দল নিয়ে, আর স্বাগতিকরা আছে ফর্মের তুঙ্গে। তাই প্রতিবেশী অস্ট্রেলিয়ার মতো নিউজিল্যান্ডের জন্যও সামনে কঠিন সময় অপেক্ষা করছে তা বলাই যায়।

আগামী ১ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হবে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশের ৫ ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজ। এরপর ৩, ৫, ৮ ও ১০ সেপ্টেম্বর সিরিজের বাকি চারটি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে। সিরিজের প্রতিটি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে মিরপুরের শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে।

এদিকে বাংলাদেশ-নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার পাঁচ ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের ম্যাচগুলোর সময় এগিয়ে আনা হয়েছে। সন্ধ্যায় শুরু হওয়ার কথা থাকলেও সফরকারী দলের দর্শকদের কথা মাথায় রেখে ম্যাচগুলো শুরু হবে বাংলাদেশ সময় বিকেল ৪টায়।

0/Post a Comment/Comments